আমিরাতে নতুন বিপদ সংকেত, ভিসা বাতিল হতে পারে বাংলাদেশী প্রবাসীদের

সাকিব আল রোমান, দুবাই থেকে :
সংযুক্ত আরব আমিরাতের অভিবাসীদের যারা ৬ মাসের বেশি দেশের বাহিরে রয়েছেন তাদের অনেকের ভিসা কেনসেল হতে পারে জানিয়েছেন অভিবাসন কর্তৃপক্ষ। এক্ষেত্রে যাদের ভিসা কেনসেল হবে তাদেরকে নতুন ভিসার জন্য আবেদন করতে হবে।
যেসকল দেশের ফ্লাইট বন্ধ ছিল তাদের ফ্লাইট চালু হলে অনলাইনে আবেদন করে আমিরাতের অনুমতি পেলেই কেবল আমিরাতে প্রবেশ কর‍তে পারবে। পর্যটন ভিসার ক্ষেত্রেও এক মাস সময় বেঁধে দেওয়া হয়েছে। এক মাসের মধ্যে কাজের সন্ধান করে ভিসা লাগানো অথবা দেশ ত্যাগ করতে হবে।
৬ মাসের বেশি আমিরাতের বাহিরে থাকলে ভিসা কেনসেল হয়ে যাওয়ার যে আইন ছিল এই বছরের শুরুর দিকে কর্তৃপক্ষ ঘোষণা করেছিল যে ১ মার্চের পরে শেষ হওয়া রেসিডেন্সি ভিসার মেয়াদ ডিসেম্বর শেষে অটোমেটিকভাবে নবায়ন করা হবে, কারণ করোন ভাইরাসের কারণে অনেক সরকারী অফিস বন্ধ ছিল।
ইতিপূর্বে ভিসা অটোমেটিকভাবে নবায়নের যে সিদ্ধান্ত নিয়েছিল জুলাই মাসের ১০ তারিখে হঠাৎ তা বাতিলের ঘোষনা দিয়েছে আমিরাত সরকার। যার ফলে নতুন সমস্যার মুখোমুখী অনেক প্রবাসী বাংলাদেশী।
দুবাই’র রেসিডেন্সি ও বিদেশ বিষয়ক মহাপরিচালক মোহাম্মদ আহমদ আল মেরির মতে, ছয় মাসের বেশি সময় ধরে দেশের বাইরে আটকে থাকা বাসিন্দাদের অনেকের ভিসা বাতিল করা হবে। তবে আমিরাত নাগরিকের যে কোনও বিদেশী স্ত্রী, তাদের গৃহকর্মী এবং বিদেশে চিকিত্সারত সরকারী চাকরিজীবি, বেসরকারি খাতের হয়ে প্রশিক্ষণ নেওয়ার জন্য অন্যদেশে অবস্থানরত, যারা পরিবারের রেখে বাহিরে আছে তারা বর্তমান রেসিডেন্স ভিসায় আমিরাতে আসতে পারবেন।
নতুন এই আইনের ফলে সবচেয়ে বেশি বিপদে পড়তে যাচ্ছে বাংলাদেশি প্রবাসীরা। ছয় মাস অতিক্রমের সাথে সাথে ভিসা বাতিল হলে নতুন ভিসার আবেদন করে ভিসা পাবে কি না তা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। কারণ প্রায় ৮ বছর থেকে বাংলাদেশিদের জন্য আমিরাতে ভিসা বন্ধ রয়েছে।

পূর্ববর্তী পড়ুন

ভুল নম্বরে টাকা চলে গেলে ফেরত পাবেন যেভাবে

পরবর্তী পড়ুন

এবারের ঈদুল আজহায় ইত্যাদি এন্ড্রু কিশোরকে শ্রদ্ধা জানিয়ে 

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fourteen − fourteen =

সর্বাধিক পঠিত